ভারতের সাংস্কৃতিক লেনদেনও বন্ধ : ইসলামাবাদ

প্রকাশিতঃ ৭:০০ অপরাহ্ণ, শুক্র, ৯ আগস্ট ১৯

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতের ওপর পাকিস্তানি নিষেধাজ্ঞা বেড়েই চলেছে। বাণিজ্য, কূটনীতি, রেল যোগাযোগের পর এবার সব ধরনের সাংস্কৃতিক লেনদেনও বন্ধ করলো ইসলামাবাদ। পাকিস্তানের প্রভাবশালী সংবাদমাধ্যম দ্য ডন জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার (৮ আগস্ট) দেশজুড়ে ‘ভারতকে না বলুন’ স্লোগান চালু করেছে পাকিস্তানের তথ্য ও প্রচারণা মন্ত্রণালয়। এদিন ভারতের সঙ্গে সংস্কৃতি বিষয়ক সব ধরনের যৌথ উদ্যোগ ও লেনদেন নিষিদ্ধের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।
পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও প্রচারণা বিষয়ক বিশেষ সহকারী ড. ফিরদাউস আশিক আওয়ান বলেন, সব ধরনের ভারতীয় কন্টেন্ট নিষিদ্ধ করা হয়েছে। পেমরা (পাকিস্তান ইলেকট্রনিক মিডিয়া রেগুলেটরি অথোরিটি) এ বিষয়ে কড়া নজরদারি শুরু করেছে। কেউ এ আদেশ লঙ্ঘন করে ভারতীয় ডিটিএইচ (ডিরেক্ট টু হোম) সামগ্রী বিক্রি করলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। দেশটির সব সিনেমা হল ও মাল্টিপ্লেক্সে ভারতীয় সিনেমা প্রদর্শদনও নিষিদ্ধ করেছে ইমরান খানের সরকার।
ড. ফিরদাউস আশিক আওয়ান এক টুইট বার্তায় বলেন, পাকিস্তানে কোনো ভারতীয় সিনেমা প্রদর্শন করা হবে না। নাটক, সিনেমা বা এ ধরনের যেকোনো কন্টেন্ট পাকিস্তানে সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ। অবশ্য পাকিস্তানে ভারতীয় নাটক-সিনেমা নিষিদ্ধের ঘটনা এটাই প্রথমবার নয়। গত ফেব্রুয়ারিতেই ভারতীয় বিমানবাহিনীর বিরুদ্ধে আকাশসীমা লঙ্ঘনের অভিযোগে সে দেশের সব সিনেমা বয়কটের ঘোষণা দেয় পাকিস্তান চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতি। সে সময় ভারতে নির্মিত বিজ্ঞাপনের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল পাকিস্তান।

আপনার মতামত জানানঃ