“রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারকে আরও আন্তরিক হওয়ার আহ্বান”

প্রকাশিতঃ ৮:৫৫ অপরাহ্ণ, বুধ, ১১ সেপ্টেম্বর ১৯

Advertisements

বিশেষ সংবাদদাতাঃ রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারকে আরও আন্তরিক হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন।

বুধবার (১১ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রাজধানীর আগারগাঁওয়ের পল্লী কর্ম–সহায়ক ফাউন্ডেশনের (পিকেএসএফ) এসডিজি ৩: সুস্বাস্থ্য ও কল্যাণ বিষয়ক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

তিনি বলেন, আমরা কাউকে জোর করে পাঠাবো না। তবে আমরা চাই তারা স্বেচ্ছায় তাদের দেশে ফিরে যাক।

‘তাদের দেশের লোকগুলো ফিরিয়ে নিতে রাজি করার দায়-দায়িত্ব মিয়ানমার সরকারের। সেখানে তারা ব্যর্থ হয়েছে। আমরা জোর করে কাউকে পাঠাবো না। চাই যত তাড়াতাড়ি পারুক তাদের বুঝিয়ে নিয়ে যাক।’

মন্ত্রী বলেন, ভাসানচর সাময়িক ব্যবস্থা। অল্প কয়েকদিনের জন্য এটা করা হয়েছে। এটা কোনো সমাধান না। এটার সমাধান হচ্ছে মিয়ানমারের লোক মিয়ানমারে ফেরত যাওয়া। আর এজন্যই আমরা চাইবো মিয়ানমার সরকার আন্তরিক হোক এবং তাদের লোকগুলোকে তাদের দেশে ফিরিয়ে নিয়ে যাক।

‘মিয়ানমার সরকার আমাদের বলেছে যে তারা প্রত্যাবর্তন প্রক্রিয়া করছে। আরেকটা জিনিস হলো সেখানে ঘরবাড়ি তৈরি হলো কিনা সেটা দেখার বিষয় না, কারণ আমরা যখন ভারত থেকে এসেছিলাম তখন আমাদের ঘরবাড়ি ছিল কিনা চিন্তা করিনি। ঠিক তেমনি রোহিঙ্গারা যখন এদেশে এসেছে তখন ঘরবাড়ির কথা চিন্তা করেনি, পালাই পালাই করে চলে এসেছে।’

মন্ত্রী আরও বলেন, যখন যাওয়া শুরু হবে সেখানে গিয়ে তারা ঠিক করে নেবে। নিশ্চয়ই সে দেশের সরকার তাদের জন্য কিছু না কিছু ব্যবস্থা করেছে। কেননা তারা বারবার আমাদের কাছে বলেছে, ওয়াদা করেছে তাদের ফিরিয়ে নিতে কাজ করছে বলে।

পিকেএসএফের পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি ড. কাজী খলীকুজ্জমান আহমদ এর সভাপতিত্বে সেমিনারে আরও বক্তব্য রাখেন স্বাস্থ্য, শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের সচিব শেখ ইউসুফ হারুন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন অধ্যয়ন বিভাগের অধ্যাপক ড. নিয়াজ আহমেদ খান প্রমুখ।

সেমিনারে স্বাগত বক্তব্য রাখেন পিকেএসএফ-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মঈনউদ্দীন আবদুল্লাহ্। মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন পিকেএসএফের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন।

আপনার মতামত জানানঃ