ছাত্রীর আত্মহত্যা : নীলক্ষেত অবরোধে সাত কলেজ শিক্ষার্থীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক : ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) অধিভুক্ত বেগম বদরুন্নেছা সরকারি মহিলা কলেজের ছাত্রীর আত্মহত্যার ঘটনায় নীলক্ষেত মোড় অবরোধ করেছেন সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা।তাদের দাবি, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের অবহেলায় মিতুকে আত্মহত্যা করতে হয়েছে। অবরোধ করা শিক্ষার্থীরা বলছেন, আমরা এর সুষ্ঠু বিচার চাই। অন্যথা রাস্তা ছাড়ব না।

জানা গেছে, আত্মহত্যাকারী ওই শিক্ষার্থীর নাম মনিজা আক্তার মিতু। মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগর উপজেলার মহিউদ্দিন মাস্টার ও সালমা বেগমের মেয়ে তিনি। বেগম বদরুন্নেছা সরকারি মহিলা কলেজের অনার্স দ্বিতীয় বর্ষের অর্থনীতি বিভাগের শিক্ষার্থী ছিলেন মিতু।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রকাশিত রেজাল্টে তিন বিষয়ে ফেল করেন মিতু, যা মেনে নিতে না পেরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন বলে তার সমপাঠীরা জানিয়েছেন।

এর আগে অন্য একটি দাবিতে চলা আন্দোলন গত ১৬ জুলাই স্থগিত করেছিলেন সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা। সেদিন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) প্রক্টর অধ্যাপক ড. এ কে এম গোলাম রব্বানীর আশ্বাসে ওই আন্দোলন স্থগিত করেন সাত কলেজের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীরা।

college

সেদিন আলোচনা শেষে ঢাকা কলেজের ছাত্র ইমরান বলেন, প্রক্টর আমাদের আশ্বাস দিয়েছেন, যারা নট প্রমোটেড, তাদের পরবর্তী বর্ষে উত্তীর্ণের জন্য বিশেষ পরীক্ষার ব্যবস্থা নেয়ার বিষয়ে তিনি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করবেন।।

আপনার মতামত জানানঃ