মক্কায় গিয়ে হাজিদের যে আদব রক্ষা জরুরি

নিউজ ডেস্ক: পবিত্র নগরী মক্কায় আল্লাহর ঘর কাবা শরিফ অবস্থিত। এ ঘরের মর্যাদা ও আদব রক্ষার্তে এ পবিত্র নগরীর চলাফেরায় সাবধানতা অবলম্বন করা জরুরি। মক্কায় গিয়ে প্রত্যেক হাজির প্রথম কাজ হলো ওমরা আদায় করা। তবে ওমরার আগে কিছু আদব ও নিয়ম মেনে তা পালন করা। আ তাহলো-

>> মক্কায় পৌঁছে নির্ধারিত স্থান বাড়ি বা হোটেল কিংবা সুবিধাজনক যে কোনো স্থানে একটু বিশ্রাম করা। যাতে সফরের ক্লান্তি দূর হয়ে যায়। শক্তি অর্জিত হয়। যাতে ধীরস্থিরভাবে পরিপূর্ণ উদ্দমে ওমরা পালন করা যায়। ইহরাম অবস্থায় বিশ্রাম নেয়ায় কোনো ক্ষতি নেই।
>> বিশ্রাম গ্রহণের পর কাবা শরিফ তাওয়াফের আগে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন ও পবিত্র হওয়া জরুরি।
>> সম্ভব হলে গোসল করে নেয়া মুসতাহাব। প্রিয় নবি এমনটি করতেন। গোসলের সুযোগ না থাকলে ওজুর মাধ্যমে পবিত্রতা হয়ে নেয়া।
>> কষ্টদায়ক না হলে কাবা শরিফ তাওয়াফের জন্য মসজিদে হারামে প্রবেশকালে উঁচুভূমি দিয়ে প্রবেশ করা।
>> সম্ভব হলে মসজিদে হারামের ‌বাবুস সালাম গেট দিয়ে প্রবেশ করা উত্তম। সম্ভব না হলে যে কোনো দরজা দিয়েই প্রবেশ করা যায়।
>> মসজিদে হারামে ডান পা দিয়ে প্রবেশ করা এবং এ দোয়া পড়া-
أَعُوذُ بِاللهِ الْعَظِيمِ وَبِوَجْهِهِ الْكَرِيمِ وَسُلْطَانِهِ الْقَدِيمِ مِنْ الشَّيْطَانِ الرَّجِيمِ بِسْمِ اللهِ وَالصَّلاَةُ وَالسَّلاَمُ عَلٰى رَسُوْلِ اللهِ – اَللَّهُمَّ افْتَحْ لِيْ أَبْوَابَ رَحْمَتِكَ
উচ্চারণ : আউজুবিল্লাহিল আজিম ওয়া বিওয়াজহিল কারিম ওয়া সুলত্বানিহিল কাদিমি মিনাশ শায়ত্বানির রাঝিমি বিসমিল্লাহি ওয়াস সালাতু ওয়াস সালামু আলা রাসুলিল্লাহি- আল্লাহুম্মাফতাহলি আবওয়াবা রাহমাতিকা।’

মনে রাখতে হবে
মসজিদে হারামের প্রবেশের পর তাহিয়াহ হলো কাবা শরিফ তাওয়াফ করা। যদি কারো তাওয়াফের নিয়ত না থাকে তবে সে যেন তাহিয়াহস্বরূপ দুই রাকাআত নামাজ আদায় করেই বসা। আর যদি জামাআতে নামাজ চলতে থাকে তবে না বসে সরাসরি জামাআতে অংশগ্রহণ করা।

আবার যখন মসজিদে হারাম থেকে বের হবেন ঠিক তখন দুনিয়ার অন্যান্য মসজিদের মতো এ দোয়া পড়া-

بِسْمِ اللهِ وَالصَّلاَةُ وَالسَّلاَمُ عَلٰى رَسُوْلِ اللهِ اَللَّهُمَّ إِنِّيْ أَسْأَلُكَ مِنْ فَضْلِكَ
উচ্চারণ : বিসমিল্লাহি ওয়াস সালাতু ওয়াস সালামু আলা রাসুলিল্লাহি আল্লাহুম্মা ইন্নি আসআলুকা মিন ফাদলিক।’

সারাবিশ্ব থেকে আগত প্রত্যেক হজ পালনকারীর জন্য পবিত্র মক্কা নগরীতে গিয়ে উল্লেখিত কাজগুলো যথাযথভাবে পালন করা জরুরি। অতঃপর প্রশান্তচিত্তে ওমরার কাজ সম্পন্ন করা।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে মক্কায় গিয়ে উল্লেখিত নিয়মে প্রশান্ত চিত্তে হজ ও ওমরার কাজ সম্পন্ন করার তাওফিক দান করুন। সবার জন্য ওমরা ও হজকে সহজ করে দিন। হজে মাবরূর দান করুন। আমিন।

আপনার মতামত জানানঃ